বগুড়া জেলার সংবাদশাজাহানপুর

শাজাহানপুরে দুই বাস মুখোমুখি সংঘর্ষে স্বামী-স্ত্রী সহ নিহত ৩

বগুড়া সংবাদ ডট কম (শাজাহানপুর প্রতিনিধি জিয়াউর রহমান) : বগুড়ার শাজাহানপুরে যাত্রীবাহী দুটি বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে স্বামী-স্ত্রী সহ নিহত হয়েছে ৩জন। আহত হয়েছে মহিলা ও শিশু সহ অন্তত ২০ জন।

বুধবার দুপুর পৌনে ২টার দিকে উপজেলার আড়িয়া বাজার স্ট্যান্ডে এই দূর্ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে থানা পুলিশ, হাইওয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা এসে উদ্ধার তৎপরতা চালায়। আহতরা বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধিন রয়েছে।

নিহতরা হলেন, রংপুর সদরের কামাল কাচনা গ্রামের আব্দুল্লাহ আল কাফির পুত্র খায়রুল আলম যাদু (৫৫) ও তার স্ত্রী রানু বেগম (৪৫)। অপর নিহত ব্যক্তির পরিচয় পাওয়া যায়নি। তবে তিনি বাস চালক বলে জানা গেছে।

আহতদের মধ্যে রংপুর সদরের মেলাবর গ্রামের পরিমলের স্ত্রী মিনতী (৪০), রংপুর ঘোড়াঘাট থানার কানাগাড়ী গ্রামের সুবিদের মেয়ে সুলতানা (৪৫), গংগাচড়া থানার পাকুরিয়া গ্রামের আব্দুল বাতেনের পুত্র সাব্বির (৩২) এবং নিহত খায়রুল আলম যাদুর পুত্র এইচএসসি ১ম বর্ষের ছাত্র মিরাজ ও ৪র্থ শ্রেণীতে পড়–য়া মেয়ে জান্নাতী খাতুন বলে জানা গেছে। অপর আহতদের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

নিহত খায়রুল আলম যাদুর পুত্র আহত মিরাজ জানায়, তার মা রানু বেগম ঢাকা কেরানীগঞ্জ তেলখানা এলাকায় আইডিয়াল প্রিপ্যারেটরী স্কুলে শিক্ষকতা করেন। মা-বাবার সাথে ঢাকাতেই তারা থাকে। ঈদের ছুটিতে সবাই একসাথে বাড়ি ফিরছিল তারা।

স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শিরা জানান, আড়িয়া বাজার স্ট্যান্ডে মহাসড়কের উপর একটি লোকাল বাস থামিয়ে যাত্রী উঠানামা করছিল। এমন সময় ঢাকা দিক থেকে আসা রংপুরগামী শ্যামলী পরিবন (ঢাকা মেট্রো-ব-১৪-৪০৪৫) নামে একটি যাত্রীবাহি বাস থেমে থাকা লোকাল বাসটিকে অভারটেক করার সময় বিপরিত দিক থেকে আসা ঢাকাগামী আহাদ এন্টার প্রাইজ (ঢাকা মেট্রো-ব-১৩-০৪০৭) নামে যাত্রীবাহি বাসের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। সংঘর্ষে গুরুতর আহত অবস্থায় অন্তত ২০-২৫ জনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

থানার ওসি আজিম উদ্দিন জানান, দূর্ঘটনার খবর পেয়ে থানা পুলিশ, হাইওয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছে উদ্ধার তৎপরতা চালিয়ে মহাসড়কে যান চলাচলা স্বাভাবিক করা হয়। আহতদেরকে বগুড়া শজিমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সেখানে মহিলাসহ তিন জন মারা যায়। দূর্ঘটনা কবলিত বাস দুটি থানায় আটক রয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

15 + 2 =

Back to top button
Close