বগুড়া সংবাদ ডট কম (মহাস্থান প্রতিনিধি এসআই সুমন) : বগুড়ার মহাস্থান রূপালী ব্যাংক লিমিটেড মহাস্থান শাখা জালিয়াতির প্রতিবাদ করায মহাস্থানের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আলহাজ্ব আজমল হোসেন এর বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করা প্রতিবাদে সোমবার বিকালে হাট চত্বরে বণিক সমিতির উদ্যোগে এক প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রতিবাদ সমাবেশে বণিক সমিতির সভাপতি ও রায়নগর ইউপি চেয়ারম্যান ফিরোজ আহম্মেদ রিজু বলেন, গত ০৭/০২/১৮ইং তারিখে রূপালী ব্যাংক লিমিটেড মহাস্থান শাখায় বড় ধরনের আর্থিক অনিয়ম ও জালিয়াতি ধরা পড়ে। এঘটনায় উক্ত ব্যাংকের গ্রাহক ব্যবসায়ী আজমল হোসেন প্রতিবাদ করায় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ তার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে। প্রকৃত ঘটনা হল গত ৬ই ফেব্র“য়ারী আজমল হোসেন ব্যাংকে গিয়ে শাখা ব্যবস্থাপকের কাছে তার ব্যবসায়ী প্রয়োজনে নিজের পরিচালনধীন তিনটি হিসাবের হিসাব বিবরণী চাইলে শাখা ব্যবস্থাপক জানান ব্যাংকের হিসাব নিকাশের একটু সমস্যা আছে বিকালের আগে হিসাব বিবরনী দেওয়া সম্ভব নয়। আজমল হোসেন বিকালে ব্যাংকে গিয়ে জানতে পারেন শাখা ব্যবস্থাপক জোবায়েনুর রহমান স্বরণ ব্যাংক থেকে বেলা এগারোটা চল্লিশ মিনিট এর দিকে চলে গেছেন। পরে তিনি ব্যবসায়ীক আজমল হোসেনকে একটি হিসাবের বিবরণী কম্পিউটার হতে প্রিন্ট করে দেন। হিসাব বিবরণী হাতে পাওয়ার পর ব্যবসায়ী আজমল হোসেন তার তিনটি হিসাবের প্রায় ৬০লক্ষাধিক টাকা গরমিল খুজে পান। সাথে সাথে তিনি ব্যাংকে কর্মরত কর্মকর্তাকে জানালে ব্যাংক কর্মকর্তা শাখা ব্যবস্থাপক বরাবরে একটি আবেদন দাখিল করতে বলেন। আজমল হোসেন আবেদন দাখিল করে তার রিসিফ কপি গ্রহন করে চলে যান। একই দিনে গভীর রাতে বগুড়া সদর থানা পুলিশ ব্যাংক জালিয়াতির বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করার কথা বলে ব্যবসায়ী আজমল হোসেনকে তার বাড়ী মহাস্থান গ্রাম থেকে তুলে নিয়ে যান। পরে তাকে জানানো হয় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন। সে মোতাবেক তাকে আটক করে কোর্টে প্রেরণ করা হয়। পরবর্তীতে জামিনে তিনি মুক্ত হন। বনিক সমিতির সভাপতি আরো বলেন, ব্যবসায়ী আজমল হোসেন মহাস্থান এলাকার একজন সুনামধন্য ব্যবসায়ী। অত্র এলাকায় তার ব্যবসীয়িক সুনাম দীর্ঘদিনের। তিনি এহেন কর্মকান্ডের সাথে কখনো জড়িত হতে পারেন না। ব্যাংকের দুর্নীতি ঢাকবার জন্য ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ষড়যন্ত্রমূলক ভাবে এমন একজন সুনামধন্য ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করে হয়রানি করছে। অবিলম্বে বণিক সমিতির পক্ষ থেকে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের এবং পুলিশী হয়রানীর বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিবাদ সহ তার বিরুদ্ধে দায়েরকৃত ষড়যন্ত্রমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবী জানান। সেই সাথে এলাকার সাধারণ জনগণ সহ যেসব ব্যবসায়ী হিসাব থেকে টাকা জালিয়াতি করা হয়েছে তাদেরকে দ্রুত টাকা ফেরত প্রদানের দাবী জানান। অন্যথায় আগামী দিনে ব্যাংকের আমানতকারী ও সাধারণ ব্যবসায়ীদের নিয়ে দাবী আদায়ে কঠোর কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে। এসময় উপস্থিত ছিলেন ব্যবসায়ীক আলহাজ্ব আজমল হোসেন, আলহাজ্ব জাহেদুর রহমান, মোশারফ হোসেন, বাবুল মিয়া বাবু, আবু বক্কর সিদ্দিক, শাহাদত হোসেন, শফিকুল ইসলাম শফিক, ফুলমিয়া, দুলাল হোসেন, ইউপি সদস্য ছানাউল হক ছানা, রায়হান আলী, আলাউদ্দিন, বেলাল মন্ডল, সিরাজুল ইসলাম, জিয়াউর রহমান জিয়া, আব্দুল মালেক সহ বণিক সমিতির সকল সদস্য ও ব্যবসায়ীবৃন্দ।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন