বগুড়া সংবাদ ডট কম (নামুজা প্রতিনিধি, আনোয়ার হোসেন) : বগুড়ার শিবগঞ্জের মাঝিহট্টে বিয়ের ১৫ বছর পর এক প্রবাসীর সুন্দরী স্ত্রী দুই সন্তানের জননী শিউলি নিখোঁজ অতপর; থানায় ডায়েরী। বিবরণে প্রকাশ; মাঝিহট্ট ইউপির গামড়া গ্রামের আব্দুল হাই (হাকিম) এর কন্যা মোছাঃ শিউলি আক্তার-কে ১৫ বছর পূর্বে একই ইউপির চালুঞ্জা কালিতলা চন্দ্রপুকুর গ্রামের ফজর খানের পুত্র জহুরুল ইসলামের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিবাহ হয়। পরিবারের সুখের কথা চিন্তা করে এক বছর পূর্বে স্বামী জহুরুল ইসলাম মালয়েশিায়া গমন করে এবং প্রবাসেরত। এমত অবস্থায় শিউলি আক্তার পিতার বাড়ী গামড়া গ্রামে দুই সন্তান-কে নিয়ে থাকতো। গত ১৫ জানুয়ারি আনুমানিক সকাল সাড়ে ৯টায় কাউকে কিছু না বলে এবং দুই সন্তান-কে রেখে পিতার বাড়ী গামড়া থেকে নিখোঁজ হয়। অনেক খোঁজা-খোঁজি করেও শিউলির কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি। এর পরিপ্রেক্ষিতে গত ১৭ জানুয়ারি পিতা আব্দুল হাই (হাকিম) বাদী হয়ে শিবগঞ্জ থানায় ডায়েরী করেন। তবে শিউলি নিখোঁজের পর থেকে সংবাদ লেখা পর্যন্ত তার মোবাইলফোন বন্ধ পাওয়া যাচ্ছে। গত ১৮ জানুয়ারি শিউলির পিতার বাড়ীতে গিয়ে এ ব্যাপারে জানতে চাওয়া হলে, তার মা নিখোঁজের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন। স্বামীর সরলতা আর অনুপস্থিতির সুযোগ নিয়ে ক্লাস অষ্টম শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়ে ও পঞ্চম শ্রেণিতে পড়ুয়া ছেলেকে অসহায় করে নিখোঁজ হয়ে যাওয়ার বিষয়টি নিয়ে জনমনে দেখা দিয়েছে মিশ্র প্রতিক্রীয়া।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন