বগুড়া সংবাদ ডট কম (ধুনট প্রতিনিধি ইমরান হোসেন ইমন) : বগুড়ার ধুনটে বিশ্ব ইজতেমা শুক্রবার সকাল সাড়ে ৮টায় আখেরী মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে। আখেরী মোনাজাত পরিচালনা করবেন ঢাকার কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা হযরত ফারুক সাহেব। টঙ্গির বিশ্ব ইজতেমা সফল করতে ঢাকার কাকরাইল মসজিদের তত্বাবধায়নে প্রতি বছরের ন্যায় এবারও ধুনট উপজেলার সরুগ্রাম উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে বিশাল ময়দানে তাবলিক জামাতের ৪১তম এই বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হচ্ছে।
ইজতেমার আয়োজক কমিটির সূরা সদস্য হুমায়ুন কবির জানান, ইজতেমায় সৌদিআরব, ইন্দোনেশিয়া, নাইজেরিয়া, মরক্কো, ফিলিপাইন, সহ ৬/৭টি বিদেশী জামাত ছাড়াও দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা থেকে লাখ লাখ ধর্মপ্রাণ মুসল্লিগণ জামাত বন্দি হয়ে অংশ গ্রহন করেছেন। বুধবার বাদ আসর কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুল মালেক সাহেবের উদ্বোধনী আম বয়ানের মধ্য দিয়ে ইজতেমা শুরু হয়েছে। বুধবার বাদ মাগরীব ও বৃহস্পতিবার বাদ ফজর কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুল মতিন সাহেব কোরআন ও হাদিসের আলোকে হেদায়েতের বয়ান পেশ করেন। এসময় লাখো ধর্মপ্রান মুসল্লিগনের সুবাহান আল্লাহ্, আলহামদুলিল্লাহ্, আল্লাহু আকবর ধ্বনীতে মুখরিত হয়ে ওঠে ইজতেমা ময়দান। বৃহস্পতিবার বাদ যহর বায়ন করেন বগুড়া মার্কাস মসজিদের মুরব্বী হাফেজ মাওলানা ওজিউল্লাহ্। তিনি তার বয়ানে ঈমান ও আমল মজবুত করতে মুসল্লিগনকে হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) এর সুন্নত ও আদর্শ নিয়ে আল্লাহ্র রাস্তায় বের হওয়ার আহবান জানান। সেই সাথে তিনি দ্বীন ও ইসলামের দাওয়াত দেন। বাদ আসর বয়ান করেন কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুল মালেক সাহেব এবং বাদ মাগরীব বয়ান করেন মাওলানা হযরত ফারুক সাহেব। শুক্রবার ফজরের নামাজ আদায়ের পর কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুল মতিন সাহেব বয়ান করবেন। এরপর সকাল সাড়ে ৮টায় আখেরী মোনাজাতের মধ্য দিয়ে তিন দিনের এই বৃহত্তম বিশ্ব ইজতেমার সমাপ্তি ঘটবে।
ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, ইজতেমা প্রাঙ্গনে নিরাপত্তা বজায় রাখতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের পাশাপাশি স্বেচ্ছাসেবী মুসল্লিগন নিয়োজিত রয়েছেন। তাই শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ইজতেমা অনুষ্ঠিত হবে।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন