বগুড়া সংবাদ ডট কম (নন্দ্রীগ্রাম প্রতিনিধি ফিরোজ কামাল ফারুক) : হেমন্তের শিশিরে ভেজা সকাল বেলায় খেজুর গাছের রসে ভড়া হাড়ি নামানোর জন্য গাছিড়া খেজুর গাছ ঝুড়তে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে। আবার অনেকেই এটাকে পেশা হিসেবে নিয়েছে। শীতকালজুরে খেজুর গাছ থেকে রস সংগ্রহ করে গাছিড়া। শীতের সকালে খেজুরের রস খেতেও বেশ মজা। খেজুরের রস দিয়ে শীত কালে নানা রকমের পিঠা-পুলি ও পায়েশ তৈরি করে থাকে। খেজুরের পাটারী গুড়ও বেশ জনপ্রিয়। তাই শীত কালে খেজুর রস সংগ্রহের জন্য সবাই এখন তৎপর হয়ে উঠেছে। বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলার প্রত্যেক গ্রামে ও রাস্তা-ঘাটে অসংখ্য খেজুর গাছ রয়েছে। এখানে বিপুল পরিমান খেজুর রস সংগ্রহ হয়ে থাকে। এই খেজুর গাছের রস জাল করে পাটারী, লালী ও দানা গুড় তৈরি করা হয়। ইতি মধ্যেই গাছিদের দিয়ে খেজুর গাছের ডাল-পাতা ঝুড়ে হাড়ি লাগানোর জায়গা প্রস্তুত করছে। আর কয়েক দিন পরেই গাছে হাড়ি লাগানো হবে। আসছে নবান্ন উৎসব। নবান্ন উৎসবে গ্রাম-গঞ্জে খেজুর রসে পিঠা-পুলি ও পায়েশ খাওয়ার ধুম পরে যাবে। উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজার সহ গ্রাম থেকে বিপুল পরিমান খেজুরের পাটারী গুড়, লালী ও দানা গুড় দেশের বিভিন্ন স্থানে সরবরাহ হয়ে থাকে।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন