বগুড়া সংবাদ ডট কম : তিন (৩) দিন ব্যাপি ‘বাংলার মুখ’ বিজয় উৎসব ও পৌষমেলার সমাপনী অনুষ্ঠানে আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরন করা হয়েছে। শনিবার রাত ৮ টায় শহরের শহীদ খোকন পার্কে অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বিজয় উৎসব ও পৌষমেলা উদযাপন কমিটির আহবায়ক সুলতান মাহমুদ খান রনি। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব মমতাজ উদ্দিন।

তিনি বলেন, বাঙালী সংস্কৃতি, গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার উদ্যোগ গ্রহন করেছে। সরকারের পৃষ্ঠপোষকতায় সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডে তরুন যুবসমাজ আগ্রহী হচ্ছে। আমাদের সংস্কৃতি বহু পুরাতন ও ঐতিহ্যবাহী। সমাজ থেকে কুসংস্কার দূর করে জনসচেতনতা সৃষ্টিতে সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডের ভুমিকা গুরুত্বপূর্ন। সংস্কৃতিমনা মানুষ কখনও অপরাধ করতে পারে না। সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডের মাধ্যমে দেশের উন্নয়ন এগিয়ে নেয়ার আহবান জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ডা: মকবুল হোসেন, চেম্বার অব কমার্সের সহ-সভাপতি মাফুজুল ইসলাম রাজ। অনুষ্ঠানে দেশত্ববোধক সংগীত, লোক সংগীত ও চিত্রাংকন প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরন করেন অতিথিবৃন্দ।অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদ সদস্য মারুফ রহমান মঞ্জু, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি সাজেদুর রহমান সাহীন, কৃষকলীগের সভাপতি আলমগীর বাদশা, সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুরুল হক মঞ্জু, বাংলার মুখ বগুড়া জেলা শাখার সভাপতি হাসিবুল হাসান মুন, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল আউয়াল, টিপু সুলতান, ফরিদুল ইসলাম মুক্তা, মিজানুর রহমান মিন্টু, আবু জাফর, এম ববি খান, জহুরুল ইসলাম, মাহমুদুল হাসান রকি, আতাউর রহমান আসলাম, মিম পোদ্দার, সজল শেখ, শহিদুল ইসলাম, গোলাম রব্বানী, এহসানুল করিম জিতু প্রমুখ। বাংলার মুখ বগুড়া জেলা শাখার আয়োজনে ১০ জানুয়ারী থেকে ১২ জানুয়ারী পর্যন্ত মেলায় বাঙালী সংস্কৃতি, গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরা হয়। মেলায় পিঠা উৎসব, পল্লীগীতি, বাউল সঙ্গীত, ভাওয়াইয়া গান পরিবেশন করেন শিল্পিরা। এছাড়া নাগরদোলা, চড়কি ছিল শিশুদের বিনোদনের জন্য।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন