বগুড়া সংবাদ ডট কম (ধুনট প্রতিনিধি ইমরান হোসেন ইমন) : বগুড়ার ধুনট পৌর এলাকার পূর্বভরনশাহী গ্রামের ইছামতি নদীর তীরে তাবলিক জামাতের তিন দিনের বিশ্ব ইজতেমা শনিবার সকাল ১১টায় আখেরী মোনাজাতের মধ্যদিয়ে শেষ হবে। মোনাজাত পরিচালনা করবেন ঢাকার কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা ফারুক সাহেব। এদিকে ইজতেমার দ্বিতীয় দিন শুক্রবার হাজারো ধর্মপ্রাণ মুসল্লিগণ জুম্মার নামাজ আদায় করেন। নামাজের ঈমামতি করেন ঢাকার কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা ফারুক সাহেব। নামাজ শেষে কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুল মতিন সাহেব হেদায়েতের বয়ান করেন। তিনি তার বয়ানে ঈমান ও আমল মজবুত করতে মুসল্লিদের হযরত মোহাম্মদের (সা:) সুন্নত ও আদর্শ নিয়ে আল্লাহ্র রাস্তায় বের হওয়ার আহবান জানান। এরপর বাদ আছর বগুড়া মার্কাস মসজিদের মুফতি আলাউদিন এবং বাদ মাগরিব মাওলানা ফারুক সাহেব বয়ান করেন।
বগুড়া মার্কাস মসজিদের মুফতি মাওলানা মশিউর রহমান জানান, ইজতেমায় চাঁদ, জর্ডান, মরক্ক ও তিউনিশিয়া সহ আরো কয়েকটি দেশের বিদেশী মুসল্লিগন এবং দেশের বিভিন্ন এলাকার মুসল্লিগণ জামাত বন্দি হয়ে অংশ নিয়েছেন। শনিবার বাদ ফাজর কাকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুর রহিম সাহেব ও মাওলানা আব্দুল মতিন সাহেব বয়ান করবেন। এরপর সকাল ১১টার দিকে আখেরী মোনাজাতের মধ্য দিয়ে ইজতেমার সমাপ্তি ঘটবে। তিনি আরো জানান, এই ইজতেমা শেষে মুসল্লিগন জামাত বন্দি হয়ে ঢাকার টঙ্গি ইজতেমায় অংশ নিতে রওনা দিবেন।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন