বৃহস্পতিবার বগুড়ার সোনাতলায় আওয়ামীলীগ ও সকল সহযোগী সংগঠনের সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ফিদা হাসান খান টিটু।

বগুড়া সংবাদ ডট কম (সোনাতলা সংবাদদাতা মোশাররফ হোসেন) : বৃহস্পতিবার দুপুরে সোনাতলায় আওয়ামীলীগ ও সকল সহযোগী সংগঠনের যৌথ উদ্যোগে উপজেলা আওয়ামী লীগ অফিসে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সম্মেলনে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ফিদা হাসান খান টিটু লিখিত বক্তব্যে বলেছেন, গত ২০ ডিসেম্বর বিএনপি মনোনীত সংসদ সদস্য প্রার্থী কাজী রফিকুল ইসলামের সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা নির্বাচনী আচরণ বিধি সঙ্ঘন করে তান্ডব চালিয়ে আব্দুল মান্নানের নৌকা মার্কার ও আওয়ামী লীগের অনেক নেতাকর্মির ওপর অতর্কিতে সশস্ত্র অবস্থায় ঝাপিয়ে পড়ে রক্তাক্ত আহত করেছে। তারা জোড়গাছা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ অফিস, চরপাড়া আওয়ামীলীগ অফিসসহ কয়েকটি আঞ্চলিক অফিস ও আব্দুল মান্নানের নির্বাচনী অফিস ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগ ও লুটপাট করেছে। এছাড়া কয়েকটি মোটরসাইকেল ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে ক্ষতি করেছে। আওয়ামীলীগ নেতা আতোয়ার রহমান গেদাসহ কয়েকজনের বাড়িঘরে হামলা চালিয়ে ক্ষতি করেছে। তিনি আরো বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের নৌকা মার্কার প্রার্থী আব্দুল মান্নান বিপুল ভোটে বগুড়া-১ আসনের এমপি নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ধানের শীষ মার্কার কাজী রফিকুল ইসলাম। তিনি নির্বাচনে পরাজিত হওয়ায় ঈর্ষান্বিত হয়ে ৩১ ডিসেম্বর রাত পৌনে ১টার দিকে তার সন্ত্রাসীরা আওয়ামীলীগ নেতা ও বগুড়া জেলা পরিষদের সদস্য অ্যাড.মিনহাদুজ্জামান লীটনের বগুড়াস্থ কৈপাড়া বাসায় এসে এই নেতাকে হত্যার হুমকি ও পরে ৫/৭টি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে চলে যায়। এ ঘটনায় লীটনের আত্মীয় বিপাশা মাহমুদ বর্ষা বাদী হয়ে ১ জানুয়ারি বগুড়া সদর থানায় একটি এজাহার করেন। আমরা এসব ঘটনার তীব্রনিন্দা জানাই। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামীলীগ নেতা নবীন আনোয়ার কমরেড,রবিউল আউয়াল বিপ্লব,ওয়াসিম কুমার জৈন নতুন, জান্নাতুল ফেরদৌস রুম্পা, যুবলীগ নেতা ফরহাদ হোসেন জুয়েল, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা শাহনেওয়াজ তালুকদার বাবু,শামীম রাব্বী,কৃষকলীগ নেতা সোহেল,নাহিদ,শ্রমিকলীগ নেতা জাহিদুল ইসলাম, ছাত্রলীগ নেতা মাহমুদুল হাসান রতন ও জিতুসহ অনেকে। পরে তারা একটি মিছিল করেছে।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন