বগুড়া সংবাদ ডট কম (এস আই সুমন, মহাস্থান প্রতিনিধিঃ বুধবার রাত ৮ টায় বগুড়া সদরের শেখেরকোলা মহিষবাথান নতুন বাজারে এক ট্রাক ড্রাইভারকে মিথ্যা অভিযোগে পুলিশ দ্বারা হয়রানী করার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মহিষবাথান সরকার পাড়া গ্রামের আব্দুল খালেক প্রামানিকের পুত্র রানা মিয়া জানান, আমি একজন ট্রাক ড্রাইভার প্রতি দিনের ন্যায় আমার কর্ম শেষ করে এসে গত ৬ নভেম্বর রাত ৮ টায় নতুন বাজারে বিশুর দোকানে অন্যান্য ছেলেদের সাথে কেরাম বোর্ড খেলিতে ছিলাম দোকানদার বিশুর কাছে থেকে কেরাম বোর্ডের বোডিক চাওয়াকে কেন্দ্র করে কথা কাটাকাটি হয়।তার পর আমি খেলা বন্ধ করে পাশের দোকানে বসে থাকা অবস্থায় বিশু ও তার ছোট ভাই সুলতান আমার বিরুদ্ধে বগুড়া সদর থানা পুলিশকে মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে আমাকে আটক করায় এবং থানায় নিয়ে যায় এ সংবাদ আমার গ্রামের ও পরিবারের লোকজন জানতে পেরে আমাকে থানা থেকে নিয়ে আসে ।

বিশু একজন নিষিদ্ধ ঘোষিত সংগঠনের সদস্য বলে এলাকাবাসী জানান সে গত ৪/৫ বছর পূর্বে ট্রাকের হেল্পার ছিল এখন সে কয়েকটি ট্রাক ও কয়েক কোটি টাকার মালিক এ টাকার উৎস কোথায়? দূর্নিতি দমন কমিশনের মাধ্যমে তাকে আটক করতে পারলে তার কোটি টাকার উৎসের সন্ধান বের হয়ে আসবে বলে অভিজ্ঞমহল মনে করেন। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, শেখেরকোলা ইউপি সদস্য শহিদুল ইসলাম, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মোকলেছার রহমান দিপু, সমাজসেবক আলফাজ উদ্দিন, পাভেল মৃধা, খোরশেদ আলী, আশরাফুল ইসলাম, জুয়েল রানা, আল ইমরান, পটল মিয়া ,মন্তেজার রহমান, রাজু আহম্মেদ, মুকুল, আবু শাহিন,সুজ্জাত আলী, আব্দুল গফুর, জহুরুল ইসলাম, নজরুল ইসলাম,টুকু মিয়া সহ এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন