বগুড়া সংবাদ ডটকম: বগুড়ায় সান লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানী লিঃ রাজশাহী বিভাগীয় সার্ভিসিং সেলের অধীনে ৫ হাজার গ্রাহকের ৬ কোটি টাকা পরিশোধ না করে তালবাহানার অভিযোগে কোম্পানীর এএমডি শহিদুল ইসলাম শান্ত সহ ৩ কর্মকর্তাকে মঙ্গলবার পুলিশ আটক করেছে। জানা যায়, কোম্পানীর প্রায় ৫ হাজার বীমা গ্রাহকের জামানতের টাকা ১০ বছরে মেয়াদ পূর্ণ হলেও দায়িত্ব প্রাপ্ত কর্মকর্তা তাদের লভ্যাংশ সহ টাকা ফেরত না দিয়ে এক বছর যাবত তালবাহানা করছে।

মঙ্গলবার সকালে প্রায় শতাধিক গ্রাহক কার্যালয়ে এসে টাকার চাপ দিলে অফিসের লোকজনের সাথে বিরোধ সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে পরিস্থিতি শান্ত করতে থানা পুলিশ ওই অফিসের দায়িত্ব প্রাপ্ত এএমডি শহিদুল ইসলাম শান্তসহ অফিসের ৩ জনকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। জোবেদা খাতুন নামের এক গ্রাহক জানান, মেয়ের বিয়ের জন্য বীমা করেছি। মেয়েকে বিয়ে দেব।

টাকার জন্য অফিসে আসলে অফিসাররা বলেন, ঢাকায় যোগাযোগের পর টাকা দেব। এভাবেই তালবাহানা করছেন। এএমডি মোঃ শহিদুল ইসলাম শান্ত জানান, ঢাকা অফিসের সমস্যার কারনে গ্রাহকদের চেক না হওয়ায় প্রায় ৫ হাজার গ্রাহকের ৬ কোটি টাকা পরিশোধ করা সম্ভব হয়নি। বগুড়া সদর থানার ওসি এসএম বদিউজ্জামান জানান, তাদেরকে জিঙ্গাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। টাকা পরিশোধ না হলে মামলা হবে।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন