বগুড়া সংবাদ ডট কম (মহাস্থান প্রতিনিধি এস আই সুমন) : বগুড়া সদরের লাহিড়ীপাড়া ইউনিয়নের যশোপাড়া বাজারে অটো ভ্যানের চার্জের টাকা চাওয়াকে কেন্দ্র করে এক গ্যারেজ মালিককে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে, উত্তেজিত এলাকাবাসী হত্যাকারী ঘাতক পিতা পুত্রকে গনধোলায় দিয়ে আটক করে পুলিশে সোর্পদ করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে।
সরেজমিনে গিয়ে নিহতের পরিবার ও বাজারের একাধিক ব্যক্তি সূত্রে জানা যায়।
বগুড়া সদরের লাহিড়ীপাড়া ইউনিয়নের যশোপাড়া বাজারে একই গ্রামের মৃত আজিজ মোল্লার পূত্র রাজা মোল্লা(৫৮)এর যশোপাড়া বাজারে তার অটোরিক্সা চার্জের গ্যারেজ রয়েছে।
প্রতিদিনের মতো বুধবার একই এলাকার ইলিয়াস (৫৫) তার অটোভ্যান রাজার গ্যারেজে চার্জ দিয়েছিল। বৃহস্পতিবার সকালে গ্যারেজ মালিক রাজা মিয়া গাড়ি নেয়ার সময় অটো ভ্যানের মালিক ইলিয়াসের কাছে চার্জের টাকা দাবি করলে সে বলে টাকা দিয়ে দিয়েছি। কিন্তু রাজা মিয়া বলে সে টাকা দেয়নি এ নিয়ে দুজনের মধ্য কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে রাজা ইলিয়াসকে বেশ মারধোর করে। ইলিয়াস মার খাওয়ার কথা বাড়িতে গিয়ে বললে সে কথা শুনে তার ছেলে রড মিস্ত্রি রবিউল ইসলাম (২৫) লোহার রড হাতে নিয়ে বাবার মারের প্রতিশোধের জন্য বাজারে এসে রাজাকে পেটায়। রাজা মার খেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়লে স্থানীয় এলাকাবাসী তাকে উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। এদিকে এ ঘটনায় উত্তেজিত এলাকাবাসী ঘাতক পিতা পুত্রকে গনধোলায় দিয়ে গ্যারেজে আটক করে রাখে।
পরে স্থানীয় ইউপি সদস্য আজাদুর রহমান মকবুল সদর থানা পুলিশকে বিষয়টি অবহিত করলে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সনাতন চক্রবর্তী, সদর থানার অফিসার ইনচার্জ এসএম বদিউজ্জামান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে ঘাতক ইলিয়াস এবং তার ছেলে রবিউলকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়।
এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত তাদের বিরুদ্ধে হত্যা মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলে নিহতের পরিবার ও পুলিশ জানান।
এদিকে লাশ ময়না তদন্ত শেষে বাদ আছর নিহত রাজা মোল্লা নিজ বাসভবনে জানাযার নামাজ শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন কার্য সম্পন্ন করা হয়। জানাযার নামাজে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মাফতুন আহম্মেদ,ইউপি সদস্য আজাদুর রহমান মকবুল,আবু হাসান সহ ব্যবসায়ী, গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও এলাকার হাজার হাজার মুসল্লীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
বর্তমানে এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন