বগুড়া সংবাদ ডট কম (শাজহানপুর প্রতিনিধি জিয়াউর রহমান): বগুড়া শাজাহানপুরের মাসুদ নগরের ইতিহাস ব্যতিত মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস অসম্পূর্ণ থেকে যাবে। কেননা মুক্তিযুদ্ধের প্রাক্কালে সারা দেশে সর্বপ্রথম আড়িয়া গ্যারিসনের পতন ঘটেছিল। বুকের তাজা রক্ত বিষর্জন দিয়েছিলেন শহীদ মাসুদ। আর এই বিজয়ের মধ্য দিয়ে মুক্তিযোদ্ধারা উল্লসিত ও আশান্বিত হয়েছিলেন। বিকেলে আড়িয়া বাজারে আড়িয়া গ্যারিসনের পতন দিবস ও শহীদ মাসুদের স্মরণে আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথি একেএম আসাদুর রহমান দুলু উপরোক্ত কথা গুলো বলেন।
আলোচনা সভায় শহীদ মাসুদের স্মৃতি রক্ষার্থে এবং আগামী প্রজন্মের কাছে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস পৌঁছে দিতে বক্তাগণ সরকারের প্রতি কয়েকটি দাবি উল্লেখ করেন। সেগুলো হলো আড়িয়া মৌজার নামকরণ ‘শহীদ মাসুদ নগর’ করা, মাসুদ নগরে শহীদ মাসুদসহ মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি কমপ্লেক্স নির্মাণ করা, স্থানীয় ও জাতীয় পত্রিকা সমূহে প্রতিবছর ১ এপ্রিল বিশেষ ক্রোড়পত্র প্রকাশ করা। সেই সাথে গত ২৭ জানুয়ারি সড়ক ও জনপথ বিভাগের উচ্ছেদ অভিযানে মাসুদ নগরের স্মৃতি ফলক গুড়িয়ে দেয়ার ঘটনায় এবং মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি বিজড়িত আড়িয়া-রহিমাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়ে অদ্যাবধি শহীদ মিনার নির্মিত না হওয়ায় বক্তাগণ তীব্র নিন্দা জানিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। শাজাহানপুর উপজেলা চেয়ারম্যান সরকার বাদলের সভাপতিত্বে এবং উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক মামুনুর রশিদের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় সম্মানিত অতিথি ছিলেন শহীদ মাসুদের ভাতিজা বগুড়া পুলিশ লাইন্স স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ শাহাদত আলম ঝুনু। প্রধান আলোচক ছিলেন উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আব্দুল মান্নান। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কোহিনুর আক্তার, ভাইস চেয়ারম্যান জহুরুল ইসলাম জাহেরুল। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান সহকারি অধ্যাপক আওরঙ্গজেব, জেলা জেএসডি’র ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মনিরুজ্জামান বাচ্চু, বীর মুক্তিযোদ্ধা ক্যাপ্টেন (অব:) আনোয়ার হোসেন, সুশাসনের জন্য নাগরিক (সুজন) শাজাহানপুর উপজেলা শাখার সভাপতি সাংবাদিক সাজেদুর রহমান সবুজ, আড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম মন্টু, প্রমুখ। অনুষ্ঠানের সার্বিক আয়োজনে ছিলেন মামুনুর রশিদ মাস্টার, বুলবুল আহম্মেদ, আতিকুর রহমান, রেজাউল করিম প্রমুখ। অনুষ্ঠান শেষে শহীদদের আত্নার মাগফেরাত কামনায় দোয়া পরিচালনা করেন উপজেলা ইমাম সমিতির সভাপতি প্রভাষক মাও: মোস্তাকিম হোসাইন।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন