বগুড়া সংবাদ ডট কম : বগুড়ার কাহালু উপজেলার মালঞ্চা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে স্বতন্ত্র দুই প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত হয়েছে। স্বতন্ত্র প্রার্থীরা হলেন মোটর সাইকেল প্রতীকের আব্দুল জোব্বার প্রাং ভোট পেয়েছেন ৭৯টি এবং আনারস প্রতীকে সাখাওয়াত হোসেন মুকুল ভোট পেয়েছেন ৮শত ৬২টি। গত বৃহস্পতিবার ভোট গ্রহনের দিন ছিল। নির্বাচনে ১৬ হাজার ৯ শত ৮৭জন ভোটার ভোট দেন। এতে বিএনপির ধানের শীষ প্রতীকের মর্জিনা বেগম ৮ হাজার ৫ শত ৪৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন আওয়ামীলীগের নৌকা প্রতীকের আলহাজ্ব ডাঃ আব্দুল হাকিম তিনি ভোট পেয়েছেন ৭ হাজার ৩ শত ১৬। ১ হাজার ২ শত ৩০ ভোট বেশী পেয়ে মর্জিনা বেগম চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। এ ব্যাপারে কাহালু উপজেলা নির্বাচন অফিসার ও রিটার্নিং অফিসার মোঃ আব্দুর রশিদ এর সাথে কথা বলা হলে তিনি জানান, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বেসরকারিভাবে ফলাফল ঘোষনা করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, নির্বাচনে ভোট প্রদানের (কাস্টিং ভোট) আট ভাগের এক ভাগ একজন প্রার্থীকে ভোট পেতে হবে। এর কম পেলে ওই প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত হবে। নির্বাচনে মোট চার জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। দুই জন স্বতন্ত্র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত আইনে পড়েছে। নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে পাঁচ হাজার টাকা জামানত দিয়ে মনোনয়নপত্র দাখিল করতে হয়।

Facebook Comments (ফেসবুকের মাধ্যমে কমেন্ট করুন)

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
আপনার নাম লিখুন